n শুভ গণেশ চতুর্থী - 1 September 2011 - হিন্দু ধর্ম ব্লগ - A Total Knowledge Of Hinduism, সনাতন ধর্ম Hinduism Site
Thursday
19-09-2019
2:22 PM
Login form
Search
Calendar
Entries archive
Tag Board
300
Site friends
  • Create a free website
  • Online Desktop
  • Free Online Games
  • Video Tutorials
  • All HTML Tags
  • Browser Kits
  • Statistics

    Total online: 1
    Guests: 1
    Users: 0

    Hinduism Site

    হিন্দু ধর্ম ব্লগ

    Main » 2011 » September » 1 » শুভ গণেশ চতুর্থী Added by: DharmaJuddha
    7:36 AM
    শুভ গণেশ চতুর্থী
    গণেশ চতুর্থী (দেবনাগরী: गणेश चतुर्थी, Gaṇeśa Caturthī) বা গণেশোৎসব সনাতন দেবতা গণেশের বাৎসরিক পূজা-উৎসব। শিব ও পার্বতী পুত্র গজানন গণেশ হিন্দুদের বুদ্ধি, সমৃদ্ধি ও সৌভাগ্যের সর্বোচ্চ দেবতা। সনাতন হিন্দুদের মতে এই দিন গণেশ তাঁর ভক্তদের মনোবাঞ্ছা পূর্ণ করতে মর্ত্যে অবতীর্ণ হন। সংস্কৃত, কন্নড়, তামিল ও তেলুগু ভাষায় এই উৎসব বিনায়ক চতুর্থী বা বিনায়ক চবিথি নামেও পরিচিত। কোঙ্কণি ভাষায় এই উৎসবের নাম চবথ ( चवथ)। অন্যদিকে নেপালি ভাষায় এই উৎসবকে বলে চথা (चथा)।

    সিদ্ধিদাতা গণেশের জন্মোৎসব রূপে পালিত হয় এই উৎসব। হিন্দু পঞ্জিকা অনুযায়ী ভাদ্র মাসের শুক্লা চতুর্থী তিথিতে গণেশের পূজা বিধেয়। সাধারণত এই দিনটি ২০ অগস্ট থেকে ১৫ সেপ্টেম্বরের মাঝে কোনো এক দিন পড়ে। দশদিনব্যাপী গণেশোৎসবের সমাপ্তি হয় অনন্ত চতুর্দশীর দিন। ভাদ্রপদ শুক্লপক্ষ চতুর্থী মধ্যাহ্নব্যাপিনী পূর্বাবিদ্ধ – এই পূজার প্রশস্ত সময়। চতুর্থী দুই দিনে পড়লে পূর্বদিনে পূজা অনুষ্ঠিত হয়। এমনকি দ্বিতীয় দিন মধ্যাহ্নের সম্পূর্ণ সময়ে চতুর্থী বিদ্যমান হলেও পূর্বদিন মধ্যাহ্নে এক ঘটিকার (২৪ মিনিট) জন্যও যদি চতুর্থী বিদ্যমান থাকে তবে পূর্বদিনেই গণেশ পূজা হয়।

    গণেশ পূজা বাংলাদেশ ও ভারতের সর্বত্র অনুষ্ঠিত হলেও এই উৎসব মহারাষ্ট্র, গোয়া, গুজরাট, কর্ণাটক, তামিলনাড়ু ও অন্ধ্রপ্রদেশ রাজ্যে বিশেষ উৎসাহ উদ্দীপনার সঙ্গে পালিত হয়। ভারতের বাইরে নেপালে এই উৎসব মহাসমারোহে পালিত হয়। শ্রীলঙ্কায় তামিল হিন্দুরাও এই উৎসব পালন করে থাকেন।



    শ্রীঋদ্ধি-সিদ্ধি সহিত শ্রীগণেশ-সাধনা:



    ‘কলৌ চণ্ডী-বিনাযকৌ’-

    কলি যুগে চণ্ডী ও গণেশ সাধনাই শ্রেষ্ঠ ।

    পুজার উপাচারঃ

    ১। বাবা গণেশের প্রতীক

    ২। লাল ফুল

    ৩। নারিকেল

    ৪। দুরবা ঘাস

    ৫। লাল চন্দন
    ৬। ধুপকাঠি





    পুজার নিয়মঃ প্রথমে ভগবান গণেশের চিত্র পুজা করতে হয়।

    হাতে নারিকেল নিয়ে মনে প্রানে নিজের ভক্তি ও ইচ্ছার কথা সিদ্ধিদাতার নিকট বলতে হয়। নারিকেল টি ভগবান গণেশের সামনে রাখতে হবে।
    এর পর নিচের মন্ত্র ১০০ বার পাঠ করতে হয়। ১০ দিন করে মত ১০০০ বার। স্বানন্দেশ গণেশান্, বিঘ্ন-রাজ বিনাযক ! ঋদ্ধি-সিদ্ধি-পতে নাথ, সংকটান্মাং বিমোচয।।১

    পূর্ণ যোগ-ময স্বামিন্, সংযোগাতোগ-শান্তিদ। জ্যেষ্ঠ-রাজ গণাধীশ, সংকটান্মাং বিমোচয।।২

    বৈনাযকী মহা-মাযাযতে ঢুংঢি গজানন ! লম্বোদর ভাল-চন্দ্র, সংকটান্মাং বিমোচয।।৩

    মযূরেশ এক-দন্ত, ভূমি-সবানন্দ-দাযক। পঞ্চমেশ বরদ-শ্রেষ্ঠ, সংকটান্মাং বিমোচয।।৪
    সংকট-হর বিঘ্নেশ, শমী-মন্দার-সেবিত ! দূর্বাপরাধ-শমন, সংকটান্মাং বিমোচয।।৫



    এর পর ১০৮ বার জপ করতে হবে
    ৐ শ্রী বর-বরদ-মূর্ত্তযে বীর-বিঘ্নেশায নমঃ ৐”


    একাদশ দিনের দিন ঐ নারিকেল টি প্রসাদ হিসেবে বাড়ীর সবাই খাবে।

    তথ্যসুত্রঃ ১। উইকিপেডিয়া ২। বৈদিক জগত
    Views: 781 | Added by: DharmaJuddha | Rating: 0.0/0
    Total comments: 3
    0   Spam
    1 Hinduism   (01-09-2011 12:10 PM)
    অনেক ভালো লাগলো পড়ে দাদা। আপনাকে পূজার শুভেচ্ছা। গণেশ আমাদের সঠিক জ্ঞান দান করুন।।

    0   Spam
    2 DharmaJuddha   (01-09-2011 12:21 PM)
    গনপতিজি কি জয়।

    আপনিও শুভেছা নিন।

    0   Spam
    3 নামহীন   (06-09-2011 9:31 PM)
    bhalo laglo- ami o puja dilam sei din...

    Only registered users can add comments.
    [ Registration | Login ]